ভারত অবৈধভাবে কাশ্মির দখলে রেখেছে : ভারতীয় অধ্যাপকের দাবি

ক্রাইমবার্তা ডেস্ক রিপোট:তোলপাড় করা মন্তব্য করেছেন ভারতের বিখ্যাত দিল্লির জওহেরলাল বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অধ্যাপক। নিবেদিতা মেনন নামের ওই অধ্যাপক সুস্পষ্টভাবে বলেছেন, কাশ্মির কোনো কালেই ভারতের অংশ ছিল না৷ ভারত অবৈধভাবে তাকে নিজের দখলে রেখেছে৷ যোধপুরের জয় নারায়ণ ব্যাস বিশ্ববিদ্যালয়ে (JNVU) বক্তব্য রাখতে গিয়ে এই মন্তব্য করেছেন বলে ভারতের সংবাদ প্রতিদিন নামের অনলাইন নিউজ পোর্টাল জানিয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলরের কাছে অভিযোগ দায়ের হয়েছে, জেএনভিইউ’র সহকারী অধ্যাপক রাজশ্রী রাণাওয়াতের বিরুদ্ধেও৷ তিনিই ওই সেমিনারে নিবেদিতা মেননকে বক্তব্য রাখার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন৷ অভিযোগ, কাশ্মির বিশেষজ্ঞ হিসেবে নাকি সেমিনারে নিবেদিতার পরিচয় দিয়েছিলেন রাজশ্রী৷ যেখানে নিবেদিতা এই মন্তব্য করেন৷ দেশের গণতন্ত্রর বিরুদ্ধেও সেমিনারে মন্তব্য করেছেন জেএনইউ’র অধ্যাপক৷ ভারত যদি গণতান্ত্রিক দেশই হয়, তাহলে সমালোচনা করার জন্য হাজতবাস কেন করতে হয়? সেমিনারে সেনাবাহিনীর ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন মেনন, তিনি বলেন ভারতীয় সেনাবাহিনী দেশের জন্য নয়, নিজেদের বাঁচার রসদ জোগাতেই কাজ করে৷

মেননের বক্তব্যের পরই বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে বিক্ষোভ দেখান এবিভিপি সমর্থকরা৷ এই বিষয়ে জেএনইউ অধ্যাপককে পরে প্রশ্ন করা হলে তিনি যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেন৷ বলেন তার মন্তব্য বিকৃত করা হচ্ছে৷ তিনি ভারতের নয় উগ্র হিন্দুত্ববাদের বিরুদ্ধে বলেছেন৷
সহকারী অধ্যাপক রাজশ্রীর প্রতিক্রিয়া অবশ্য এখনো মেলেনি৷ তবে তার এক সহকর্মী ও জেএনভিইউ’র অধ্যাপক সতীশ হরিতের সাফাই, রাজশ্রী শুধুমাত্র অভিজ্ঞ অধ্যাপক হিসেবে নিবেদিতাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন৷ তার মন্তব্যের কোনো দায় রাজশ্রীর নেই৷

Please follow and like us:
Facebook Comments