রেইনট্রিতে ধর্ষণ সাফাতদের বিচার শুরু

রেইনট্রিতে ধর্ষণ
সাফাতদের বিচার শুরু
রাজধানীর বনানীর রেইনট্রি হোটেলে দুই তরুণীকে ধর্ষণের মামলায় আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছেন আদালত।
বৃহস্পতিবার ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২-এর বিচারক শফিউল আজম অভিযোগ গঠন করে বিচারিক প্রক্রিয়া শুরু করার নির্দেশ দেন।এসময় আসামিদের বিরুদ্ধে সাক্ষী গ্রহণের জন্য আগামী ২৪ জুলাই তারিখ নির্ধারণ করেন আদালত।

এর আগে অভিযোগ গঠনের শুনানিতে আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদ, তার বন্ধু নাঈম আশরাফ, সাদমান সাকিফ, সাফাতের গাড়িচালক বিল্লাল হোসেন ও দেহরক্ষী আবুল কালাম আজাদকে আদালতে উপস্থিত করা হয়।

এর আগে, ৯ জুলাই এই মামলার অভিযোগ গঠনের শুনানির দিন ধার্য ছিল। ওই দিন শুনানির জন্য কারাগার থেকে আদালতে হাজির করা হয় পাঁচ আসামিকে। ওই দিন আসামিপক্ষ আদালতের কাছে সময়ের আবেদন জানায়। পরে বৃহস্পতিবার শুনানির দিন নির্ধারণ করেন আদালত।

গত ৮ জুন ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিমের (সিএমএম) আদালতে সাফাতসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেস্টিগেশন ডিভিশনের (ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার) পরিদর্শক ইসমত আরা এ্যানি।

জন্মদিনের পার্টিতে দাওয়াত দিয়ে হোটেলে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ এনে গত ৬ মে বনানী থানায় ওই পাঁচজনকে অসামি করে মামলা করেন ধর্ষণের শিকার এক ছাত্রী।

গত ২৮ মার্চ রাত ৯টা থেকে পরদিন সকাল ১০টা পর্যন্ত বনানীর হোটেল রেইনট্রিতে তাদের আটকে রেখে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ধর্ষণ করা হয় বলে মামলার আরজিতে উল্লেখ করা হয়।

মামলার পর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে পাঁচ আসামির সবাইকে আটক করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। বর্তমানে তারা সবাই কারাগারে আছেন।

Please follow and like us:
Facebook Comments