টঙ্গীতে টিভি দেখাকে কেন্দ্র করে এক কিশোর গলা টিপে হত্যা করেছে স্কুল ছাত্রকে

গাজীপুর সংবাদদাতাঃ গাজীপুরের টঙ্গীতে টিভি দেখাকে কেন্দ্র করে এক কিশোর দ্বিতীয় শ্রেণীর এক ছাত্রকে গলা টিপে হত্যা করে লাশ চকির নীচে লুকিয়ে রেখেছে। এ ঘটনায় ওই কিশোরকে বুধবার সকালে পুলিশে সোপর্দ করেছে তার মা। নিহত শিশুর নাম সাকিব(৮)। সে স্থানীয় একটি ব্র্যাক স্কুলের দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্র।
ঘাতক কিশোরের বিধবা মা রুমেলা বেগম জানান, ছয় মাস আগে স্বামীর মৃত্যুর পর তিনি তিন সন্তানকে নিয়ে টঙ্গীর আউচ পাড়া খাঁপাড়া রোডের একটি বাড়িতে ভাড়া থেকে পোশাক কারখানায় চাকরি নেন। তিন ছেলের মধ্যে দু’জনকে পোশাক কারখানায় চাকরি দেন। গত মঙ্গলবার রাতে কর্মস্থল থেকে তিনি বাসায় এলে তার ছেলে তাকে জানায়, পাশের বাসার সাকিবকে সে হত্যা করে লাশ ঘরের চকির নিচে লুকিয়ে রেখেছে। কিভাবে এবং কেন হত্যা করা হয়েছে জানতে চাইলে সে জানায়, ঘরে বসে টিভি দেখার সময় সাকিব তাকে বিরক্ত করছিল। বার বার ধমক দেওয়ার পরও সাকিব ঘর থেকে বের হচ্ছিল না। এতে সে বিরক্ত হয়ে সাকিবকে গলা চেপে ধরলে শ্বাসরোধে সে মারা যায়। পরে উপায়ান্তর না পেয়ে সে লাশ চকির নিচে লুকিয়ে রাখে। ঘাতক কিশোরটির (১৭) মুখে এই বর্ণনা শুনে তার মা রুমেলা কিংকর্তব্য বিমূঢ় হয়ে পড়েন । অবশেষে তিনি প্রতিবেশীদের সহযোগিতায় থানায় খবর দিয়ে ঘাতক ছেলেকে পুলিশে সোপর্দ করেন। এ ঘটনায় নিহত সাকিবের বাবা আলাল মিয়া বাদী হয়ে টঙ্গী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। তাদের উভয়ের বাড়ি নেত্রকোনা জেলার দুর্গাপুর থানার গুজির কোনা গ্রমে। রুমেলা আরো জানান, তার ছেলে পালিয়ে গেলে বাড়িওয়ালাসহ তারা সকলে জামেলায় পড়তে পারেন এই ভেবে বিলম্ব না করে তিনি ছেলেকে নির্ভয় দিয়ে ঘরে বসিয়ে রাখেন এবং কৌশলে বাসা থেকে বেরিয়ে থানায় খবর দেন।
শিশুর লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুতকারী টঙ্গী মডেল থানার এসআই মাহমুদুল ইসলাম জানান, লাশের শরীরে আঘাতের কোন চিহ্ন পাওয়া যায়নি। ঘাতক কিশোরের বয়স আনুমানিক ১৭ কিংবা ১৮ বছর হবে বলে তিনি জানান। বয়সের কোন প্রমাণপত্র না পাওয়ায় আপাতত মামলার আরজিতে ১৮ বছর বয়স উল্লেখ করা হয়েছে বলেও তিনি জানান।
###
মোঃ রেজাউল বারী বাবুল
গাজীপুর জেলা সংবাদদাতা।
০৬/১১/২০১৭ইং

 

Please follow and like us:
Facebook Comments