রাজাপুরে রহস্যজনক দূর্ঘটনা, মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ উদ্ধার!!

মোঃ সাইফুল ইসলাম ঝালকাঠি সংবাদদাতাঃ ঝালকাঠির রাজাপুরে রহস্যজনক দূর্ঘটনায় হাবিবুর রহমানের (৬৫) মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ উদ্ধর করেছে রাজাপুর থানা পুলিশ। আজ সোমবার (১৩ অক্টবর) সকাল ১১টায় ঝালকাঠি- ভান্ডারিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কের উপজেলার সদর হরি মন্দিরের সামনে রাস্তার উপর থাকা ব্যাটারী চালিত একটি ইজিবাইক থেকে উদ্ধার করা হয়। হাবিবুর রহমান কাঠালিয়া উপজেলার ছোট কৈখালী আলফা গ্রামে মৃত খোরশেদ আলীর ছেলে। ঘটনা স্থানে উপস্থিত রাজামিস্ত্রী আঃ বারেক জানায়, বাইপাস অভিমুখে ব্যাটারী চালিত ইজিবাইকটি হঠাৎ থেমে যায় এবং চিৎকারের শব্দ পেয়ে তাকালে গাড়ি উপর মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ দেখতে পায় এবং রক্তের ¯্রােত ভইতে শুরু করে। এসময় গাড়িতে থাকা অন্য চার জন যাত্রি পালিয়ে যায়। ইজিবাইক চালক ঘটনা স্থান থেকে রাজাপুর থানায় এসে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ঘটনা স্থান থেকে মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ সহ ইজিবাইকটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। ইজিবাইক চালক জাহাঙ্গীর এঘটনায় আটক রয়েছে নিহতের মেয়ে জানায়, প্রতি সোমবারের ন্যায় ব্যবসায়িক উদ্দেশ্যে দূর্বর্তী কাউখালী বাজারে যায়। চালক জাহাঙ্গীর জানায়, আজ সোমবার সকালে ছোট কৈখালী আলফা গ্রাম থেকে তার গাড়িতে ঐ নিহত (হাবিবুর রহমান) সহ মোট ৫ জন যাত্রী কাউখালী বাজারে সুপারি বিক্রয় করে তার বাইকে করে বাড়ি যাওয়ার পথে রাজাপুর উপজেলার সদর মন্দিরের সামনে এলে গাড়িতে থাকা অপর যাত্রীরা তাকে বলে স্টক করছে গাড়ি থামাও। এসময় চালক গাড়ি থামিয়ে পিছনে তাকালে মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ সহ রক্ত দেখতে পায়। রাজাপুর থানা অফিসার ইনচার্জ শামসুল আরেফিন জানায়, একটি ব্যাটারী চালিত একটি ইজিবাইকে থাকা মস্তক বিচ্ছিন্ন দেহ উদ্ধার করেছি। তার সাথে থাকা শীতের চাদর ইজিবাইকের ইঞ্জিনে পেচিয়ে মৃত্যু হয়েছে বলে আমরা প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছি এটি। ইজিবাইক চালক জাহাঙ্গীর এঘটনায় আটক রয়েছে।

 

 

Please follow and like us:
Facebook Comments