সংসদ ভেঙে দিলে নির্বাচনে যেতে প্রস্তুত বিএনপি: মওদুদ

ক্রাইমবার্তা রিপোর্ট:ঢাকা: বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেছেন, সংসদ ভেঙে দিলে বিএনপি যেকোনো সময় নির্বাচনে যেতে প্রস্তুত।
শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।
নির্বাচন আগাম হোক কিংবা সংসদের মেয়াদ শেষ করে হোক, যেকোনো অবস্থায় নির্বাচনের জন্য বিএনপি প্রস্তুত আছে। শর্ত হলো, সংসদ ভেঙে নির্বাচন দিতে হবে। কিন্তু তা দেওয়ার সাহস সরকারের হবে না বলে মনতব্য করেছেন ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।
তিনি বলেন, আগাম নির্বাচন দিতে হলে সংবিধানের ১৯৩ ধারা অনুসারে সংসদ ভেঙে দিতে হবে। সংসদ ভেঙে নির্বাচন হোক, আমরা সেটাই চাই। আমার বিশ্বাস, তারা তা দেবে না। তারা সংসদের মেয়াদ শেষ পর্যন্ত নিয়ে যাবে। আর মেয়াদ শেষ করলে নির্বাচনের তিনমাস আগে সংসদ ভেঙে লেভেল প্লেইং ফিল্ড তৈরি করতে হবে। খালেদা জিয়া যেমন বিরোধী দলীয় নেত্রী, একইভাবে বর্তমান সরকার প্রধানও বিরোধী দলীয় নেত্রী হবেন।
প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার ভাষায় কথা বলছেন বলে মন্তব্য করে মওদুদ বলেন, ‘১৯৯৪-৯৫ সালে খালেদা জিয়া বলতেন, সংবিধান অনুসারে দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন হবে। তখন বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মাথা থেকেই তত্ত্বাবধায়ক সরকারের ধারণা এসেছিলো। এখন তিনিও খালেদা জিয়ার মতো একই কথা বলেছেন।
মওদুদ আরও বলেন, যে সরকার তত্ত্বাবধায়কের ধারণা প্রবর্তন করলো, এখন তারাই সুযোগ পেয়ে সংবিধান পরিবর্তন করে বলছেন, দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন হবে। দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন কমিশন কোনোদিনও সুষ্ঠু নির্বাচন করতে পারেনি, পারবেও না।
দেশের জনগণ আগামী দিনে একটি সুষ্ঠু নির্বাচন দেখতে চান মন্তব্য করে তিনি বলেন, এমন একটি নির্বাচন, যে নির্বাচনে নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষভাবে কাজ করতে পারবে। জনগণ সুষ্ঠুভাবে ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভোট দেবেন।
এনপিপি’র চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন সাধারণ সম্পাদক মুস্তাফিজুর রহমান মোস্তফা, প্রেসিডিয়াম সদস্য এম অহিদুর রহমান প্রমুখ।

Please follow and like us:
Facebook Comments