রাজশাহীতে কন্যা সন্তানকে হত্যার দায়ে মা গ্রেফতা

    ক্রাইমবার্তা রিপোর্ট:পর পর দুই কন্যা সন্তান হওয়ায় নিজের এক মাসের শিশু কন্যাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছেন মা। আজ রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার টেমা স্কুল পাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই শিশুর দাদা মফিজ উদ্দিন বাদী হয়ে আজ মোহনপুর থানায় হত্যা মামলা করেছেন। পরে মা জহুরা ওরফে মেঘনা বেগমকে (২২) গ্রেফতার করে পুলিশ। এছাড়া ওই শিশুর লাশও উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

রাজশাহীর মোহনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম আবুল কাশেম আজাদ জানান, উপজেলার টেমা স্কুল পাড়া গ্রামের ইসলাম আলীর মেয়ে জহুরা অরফে মেঘনা বেগমের (২২) সঙ্গে তানোর উপজেলার চান্দুড়িয়া গ্রামের মফিজ উদ্দিনের ছেলে হাবিবুর রহমানের বিয়ে হয় তিন বছর আগে। সংসার করা অবস্থায় তাদের পর পর দুইটি কন্যা সন্তান জন্ম হয়। মেঘনা বেগম দুই কন্যা সন্তানকে নিয়ে কয়েকদিন আগে বাবা ইসলাম আলীর বাড়িতে বেড়াতে আসেন। পরপর দুইটি কন্যা সন্তান হওয়ায় মানসিক অশান্তিতে ভুগছিল মেঘনা বেগম। আজ দুপুরে সবার অজান্তে মেঘনা বাবার বাড়িতে তার এক মাসের কন্যা সন্তান খাদিজা খাতুনকে শ্বাসরোধে হত্যা করে। পরে পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি জানতে পেরে থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ওই শিশুকন্যার লাশ উদ্ধার করে। সন্ধ্যায় ময়নাতদন্তের জন্য শিশু খদিজার লাশ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
মোহনপুর থানার ওসি বলেন, এই ঘটনায় মা মেঘনা বেগমকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে থানায় রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এছাড়া এই ঘটনায় শিশুর দাদা মফিজ উদ্দিন বাদী হয়ে বিকেলে মোহনপুর থানায় হত্যা মামলা করেছেন। ওই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে মঙ্গলবার সকালে তাকে আদালতে পাঠানো হবে।
Facebook Comments
Please follow and like us: