পাটকেলঘাটা বাসীর একমাত্র কবরস্থানটি দীর্ঘদিন যাবত অরক্ষিত

পাটকেলঘাটা প্রতিনিধি: পাটকেলঘাটা বাসীর একমাত্র কবরস্থানটি দীর্ঘদিন যাবত অরক্ষিত অবস্থান পড়ে থাকলেও সরকারী ভাবে রক্ষনা-বেক্ষনের কোন উদ্যোগ নেই। এছাড়া জরাজীর্ণ হয়ে যাওয়ার কবরস্থানটিতে লেগেছে ভূমিদূস্যুদের ললুপদৃষ্টি। এসকল ভূমিদস্যুরা কবরস্থানে জায়গাটি সংকীর্ণ করে ফেলছে। কবরস্থানটির আশপাশের নোংরা পরিবেশের কারনে পথচারীসহ বসবাসকারী সকল মানুষজনের জন্য বসবাস দূর্বিসহ হয়ে উঠেছে। সচেতন এলাকাবাসী সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে কবরস্থানটি রক্ষা করার জন্য আশুহস্তক্ষেপ কামনা করেছে। সূত্র জানা যায়, এক সময় পাটকেলঘাটা গরুহাটখোলা সংলগ্ন সরকারী জায়গায় বাজারসহ তার আশপাশে বসবাসকারী মানুষের মৃত হলে সেখানে দাফন করা হতো। ১৯৭২ সালে উক্ত স্থানকে পাটকেলঘাটা বাজার কবরস্থান বলে মর্যাদা দেওয়া হয়। পরবর্তি সময়ে এলাকায় ব্যবসা,বানিজ্য প্রসার লাভ করার কবরস্থানটি পাশে বসবারের জন্য বসতিস্থাপন শুরু করে। পাটকেলঘাটা বাসীর কথা বিবেচনা করে কবরস্থান রক্ষার জন্য দেওয়া হয় প্রাচীর যা বর্তমানে নষ্ট হতে বসেছে। বর্তমানে করবরস্থানটির জায়গা দখলের উৎসবে মেতেছে পার্শ্ববর্তি ভূমিদস্যূরা। সম্পূর্ণ অরক্ষিত অবস্থায় রয়েছে করবস্থানটি। ময়লা আবর্জনা দূর্গন্ধ বাজারের বিভিন্ন প্রকার নোংরা জিনিষ ফেলে পরিবেশ করে ফেলেছে একেবারে নাজুক। এছাড়া এক শ্রেণীর মাদক বিক্রেতা ও নেশাখোররা এখানটাকে বেছে নিয়েছে নিরাপদ স্থান হিসেবে। কবরস্থানটির পাশে বসবাসকারী বেশ কয়েকজন জানান, বর্তমানে নোংরা পরিবেশ ও রক্ষাবেক্ষনের অভাবে এখানে মৃত ব্যক্তি কবর দিয়ে কেহ আসতে চাইছে না। তাছাড়া একটু একটু করে কবরস্থানের জায়গাটি দখল হতে বসেছে। পাটকেলঘাটাবাসীর দাবী দ্রুততার সাথে একমাত্র কবরস্থানটি সংষ্কার পূর্বক ভূমি দুস্যদের হাত থেকে রক্ষা করে পাটকেলঘাটা একমাত্র করবস্থান সরকারী ভাবে ঘোষনা করা হোক।

Please follow and like us:
Facebook Comments