নাটোরে বেইলি ব্রিজটি ঝুঁকিপূর্ণ পাটাতন প্লেট চুরি যাওয়ায় দুর্ঘটনার আশঙ্কা

নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার গালিমপুর বড়াল নদীর ওপর নির্মিত বেইলি ব্রিজটি ক্রমেই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। ব্রিজটিতে ভারী যানবহন চলাচল করায় বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা করছে এলাকাবাসী। এদিকে সম্প্রতি ব্রীজটির ভেঙ্গে পড়া একটি পাটাতন প্লেট চুরি যাওয়ায় তা আরো বেশি ঝুকিপুর্ন হয়ে পড়েছে। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার গালিমপুর বড়াল নদীর ওপর নির্মিত বেইলি ব্রিজটি ১৯৯৫ সলের ১২ ফেব্রুয়ারি সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়। ২০০৫ সালের মে মাসে কাল বৈশাখী ঝড়ে ব্রিজটি উত্তর থেকে দক্ষিণ দিকে হেলে পড়ায় এক সপ্তাহ ধরে সব ধরনের যোগাযোগ বন্ধ থাকে। পরে কর্তৃপক্ষ ব্রিজটি সংস্কার করে। ওই বছরই সড়ক ও জনপথ বিভাগ ব্রিজেটিতে ২০ টনের অধিক ভারবহনকারী যানবাহন চলাচল নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে ব্রিজের পূর্ব পাশে সাইনবোর্ড টাঙিয়ে দেয়। এদিকে, ২০১৩ সালের দিকে ব্রিজের পূর্ব অংশে বৃষ্টির পানি জমে মরিচা ধরে পাটাতন প্লেট নষ্ট হয়ে যায়। এতে ব্রিজটি আবারো যান চলাচলে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ায় কর্তৃপক্ষ নষ্ট প্লেটগুলোর কয়েকটি পরিবর্তন ও কয়েকটি ঝালাই করে সংস্কার করে। একই বছর ব্রিজটিতে ১০ টনের অধিক ভারবহনকারী যানবহন চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে আবারো সাইনবোর্ড টাঙানো হয়। এখন সাইনবোর্ডগুলো যেমন চোখে পড়ে না, তেমনই নিয়ম মানছে না যানবাহনের চালকরা। বর্তমানে ব্রিজের পাটাতনের অনেক প্লেট মরিচা ধরে নষ্ট হয়ে গেছে। প্রায় প্লেট গুলো আঁকাবাঁকা হয়ে গেছে। দুয়েকটি প্লেট নড়বড়ে হয়ে পড়েছে। গাড়ি উঠলেই ঢংঢং শব্দ হয়। তাছাড়াও পশ্চিম পাশে ব্রিজের মুখে দুই পাশের প্রাচীর ভেঙে গেছে। তার ওপর অধিক মালামাল বহনকারী ট্রাক, বালিভর্তি ট্রাক্টরসহ বিভিন্ন যানবাহন প্রতিদিন চলাচল করছে। এদিকে একটি পাটাতন প্লেট চুরি যাওয়ায় ওই অংশটি ফাঁকা হয়ে গেছে। সাধারন জনগন এতে গাছের ডাল দিয়ে চিহ্ণিত করে রেখেছে। এ অবস্থায় ব্রিজটিতে যেকোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনায় ঘটতে পারে। ক্ষতিগ্রস্থ ব্রিজটি সংস্কার করে নিরাপদে যানবাহন চলাচল নিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা। নাটোর সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আশরাফুল ইসলাম প্রামানিক মুঠোফোনে বলেন, ব্রীজটির লোহার অংশ বাদ দিয়ে কংক্রিট দিয়ে নির্মাণের একটি প্রস্তাবনা তৈরি করা হয়েছে। আশা করা যায়, আগামী তিন মাসের মধ্যে প্রস্তাবনা পাশ হবে।
নাটোরে ১২শ’৭৫ পিচ ইয়াবাসহ আটক-৩
নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরের গুরুদাসপুরে প্রায় ৪ লাখ টকা মুল্যের ১২শ’ ৭৫ পিচ ইয়াবাসহ তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৫ নাটোরের ক্যাম্পের সিপিসি-২ কোম্পানির সদস্যরা। বৃহস্পতিবার রাতে এক অভিযান চালিয়ে পৌর সদরের চাঁচকৈড় কাঠ পট্টির বাংলা প্রগতি ফার্নিচারের সামনে রাস্তায় ওই ইয়াবা বিক্রির সময় তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে র‌্যাব-৫ নাটোরের ক্যাম্পের সিপিসি-২ কোম্পানির সদস্যরা। আটককৃত ১১শ পিচ ইয়াবা ও ইয়াবা বিক্রির ৪হাজার৬শ টাকাসহ উপজেলার মশিন্দা মাঝপাড়া গ্রামের সাইফুল ইসলামের ছেলে সুরুজ আলী (৩৪), ১শ’ পিচসহ সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার নওখাদা গ্রামের আক্কেল আলীর ছেলে শরিফুল ইসলাম (৩২) এবং ৭৫ পিচসহ পাবনার চাটমোহর উপজেলার ছাইকোলার খলিলুর রহমানের ছেলে সুরুজ আলী (৩০) ৭৫ পিচ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। র‌্যাব সদস্যরা রাতেই ওই তিন মাদক ব্যবসায়ীকে গুরুদাসপুর থানায় হস্তান্তর করেছে। গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দিলিপ কুমার দাস জানান, ওই তিন আসামীকে থানায় হস্তান্তর করেছে র‌্যাব। এঘটনায় র‌্যাবের এসআই শৈলেন চন্দ্র বাদী হয়ে একটি মাদক মালা করেছে। আসামীদের নাটোর জেল হাজতে পাঠানো হবে।

নাটোরে জাতীয় নিরাপদ খাদ্য দিবস পালিত
নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরের লালপুরে জাতীয় নিরাপদ খাদ্য দিবস উপলক্ষে র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। শুক্রবার লালপুর উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত জাতীয় নিরাপদ খাদ্য দিবসের র‌্যালী গুরুত্বপুর্ণ সড়ক পদক্ষিন শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় মিলিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন নাটোর-১ (লালপুর -বাগাতীপাড়া) আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড. আবুল কালাম আজাদ। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হারুনার রশিদ পাপ্পু, সহকারি কমিশনার (ভূমি) মুহাঃ আবু তাহির, লালপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আফতাব হোসেন ঝুলফু, সাধারন সম্পাদক ইসহাক আলী প্রমুখ।

নাটোরে দুটি রাস্তা এইচবিবি করণ কাজের উদ্বোধন

নাটোর প্রতিনিধি
নাটোরের লালপুর উপজেলায় শুক্রবার বিদিরপুর আলতার মোড় হতে জয়রামপুর আবুল ফজলের বাড়ি ও বিদিরপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় হতে জয়কৃষ্ণপুর আলালের বাড়ি পর্যন্ত প্রায় দেড় কিলোমিটার রাস্তা এইচবিবি করন কাজের উদ্বোধন করা হয়। ফলক উন্মোচনের মাধ্যমে রাস্তা দুটির কাজের শুভ উদ্বোধন করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি নাটোর-১ (লালপুর -বাগাতীপাড়া) আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড. আবুল কালাম আজাদ। দুড়দুড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন লালপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম, সহকারি কমিশনার (ভূমি) মুহাঃ আবু তাহির, লালপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আফতাব হোসেন ঝুলফু, সাধারন সম্পাদক ইসহাক আলী, সহ-সভাপতি আনিছুর রহমান, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মাহমুদুল হক মুকুল, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আব্দুর রাজ্জাক প্রমুখ।

Please follow and like us:
Facebook Comments