কালিগঞ্জে যুবককে গভীর রাতে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে কুপিয়ে জখম

ক্রাইমবার্তা ডেস্করিপোট: কালিগঞ্জে যাতায়াতের রাস্তা নিয়ে বিরোধের জের ধরে এক যুবককে গভীর রাতে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে কুপিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষরা। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে উপজেলার মৌতলা ইউনিয়নের পানিয়া গ্রামে।
থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, বাড়িতে প্রবেশের রাস্তা নিয়ে পানিয়া গ্রামের আব্দুল গফফার গাজীর সাথে প্রতিবেশী ছবের আলী শেখের ছেলে সামছুর রহমান শেখ (৫৫) এর বিরোধ চলছিল। এক পর্যায়ে শত্রুতাবশত: গত শুক্রবার দিবাগত রাত ১২ টার দিকে সামছুর রহমানের নেতৃত্বে তার স্ত্রী আমেনা খাতুন (৫০), ছেলে শেখ শাহাদাৎ (৩৫), শেখ আলী হোসেন (৩০) ও মেয়ে সাজি বেগম (৩০) একত্রিত হয়ে অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে আব্দুল গফফার গাজীর ছেলে ওবায়দুল্যাহ (৩০) কে বাড়ি থেকে ডেকে পার্শবর্তী বাঁশ বাগানের ভিতর নিয়ে যায়। এসময় হত্যার উদ্দেশ্যে চাইনিজ কুড়াল দিয়ে তারা ওবায়দুল্লাহর মাথায় এলোপাতাড়ি কুপিয়ে এবং লোহার রড ও বাঁশের লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে। এসময় মোবাইল ফোনসহ জিনিসপত্র ছিনেয় নেয়। ওবায়দুল্যাহর চিৎকারে তার পিতা আব্দুল গফফার গাজীসহ প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে কালিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।
কালিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. তৈয়েবুর রহমান জানান, ওবায়দুল্যাহর জখম গুরুতর। তার মাথায় কয়েকটি সেলাই দিতে হয়েছে। তবে তার অবস্থা আপাতত: শংকামুক্ত বলে তিনি জানিয়েছেন।
এব্যাপারে আব্দুল গফফার বাদী হয়ে শেখ শাহাদাৎ কে প্রধান আসামিসহ ৫ জনকে আসামি করে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
ওবায়দুল্যাহর মা শাহিদা বেগম (৪৮) জানান, চলাচলের রাস্তা নিয়ে বিরোধ নিষ্পত্তির উদ্দেশ্যে শুক্রবার সন্ধ্যায় স্থানীয় ইউপি সদস্য ফেরদাউস মোড়লের মধ্যস্থতায় সালিশ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে আলোচনার ভিত্তিতে বিরোধ নিষ্পত্তি হয়। এজন্য গভীর রাতে প্রতিপক্ষরা আমার ছেলেকে ডাকলে সরল মনে সে তাদের সাথে বাড়ির বাইরে যায়। কিন্তু তারা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে আমার ছেলেকে মেরে ফেলার উদ্দেশ্যে কুপিয়েছে ও মারপিট করেছে। তিনি তার ছেলের হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

Please follow and like us:
Facebook Comments