শাহজান বেগম কে পিটিয়ে আহত করে পুত্র সাজ্জাদ হোসেন

ক্রাইমবার্তা রিপোট:আলমগীর হোসেন লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি : লক্ষ্মীপুরে সাজ্জাদ হোসেন (৩৭) নিজ জন্মদাতা মা শাহজান বেগমকে (৫৮) লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে স্থানীয় ও পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। এব্যপারে ওই মা বাদী হয়ে কুলাঙ্গার পুত্রকে আসামী করে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানা যায়।17
এ ঘটনা ঘটে বুধবার সকালে লক্ষ্মীপুর পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের শাঁখারী পাড়া এলাকায়।
আহত শাহজান বেগম লক্ষ্মীপুর পৌর ৫নং ওয়ার্ডের (শাঁখাড়ী পাড়া) বাঞ্চানগর গ্রামের মৃত আবু তাহেরের স্ত্রী ও কুলাঙ্গার সাজ্জাদ হোসেন তাদের জন্ম দেওয়া ২য় সন্তান।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আহত মা শাহজান বেগমের তিন সন্তান ও ৪ কন্যা সন্তানের জননী। কিন্তু তার স্বামীর মৃত্যুর পর কোন সন্তান তার খোজ খবর না নেওয়ায় বড় মেয়ের সাথে পাশাপাশি বাসায় বসবাস করেন এবং একই মেয়ে তার দেখা-শুনা করেন। এতে সাজ্জাদ ক্ষিপ্ত হয়ে প্রায় সময় বড় মেয়েসহ তাদের পরিবারের ছেলে-মেয়েদের প্রাণে হত্যার হুমকী দিয়ে আসছে। এরই সূত্র ধরে মা শাহাজান বেগম মঙ্গলবার সকালে পৌরসভার পানির বিলের কথা সাজ্জাদের সাথে আলোচনা করলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে যায়। এক পর্যায়ে রান্না ঘরে ঢুকে জন্মদাতা মাকে পিছন থেকে পাঁ দিয়ে লাথি মারে। এতে সে খ্যান্ত না হয়ে বেদড়ক মারধর করেন। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা ও পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।
হাসপাতালে আহত মা শাহজান বেগম গনমাধ্যম কর্মীদের জানান, আমার জন্ম দেওয়া তিন ছেলে খোজ খবর না নেওয়ায় আমি বড় মেয়ের সাথে পাশাপাশি বসবাস করি। তাতেও তারা সহ্য না করতে পেরে বিভিন্ন সময় আমাকে ওআমার মেয়েকে গালমন্দ করতো। সবশেষ আমাকে সে মারধর করে। আমি এই কুলাঙ্গার সন্তানের বিচার দাবী করি। তিনি কান্না জড়িত কন্ঠে আরো বলেন, এরকম সন্তান যেনো আর কেউ জন্ম না দেয়।

Facebook Comments
Please follow and like us: