ক্রিকেটাররা কে, কোথায় ঈদ উদযাপন করবেন

ক্রাইমবার্তা স্পোর্টস ডেস্ক:আইসিসির কোন মেগা টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ এবারই প্রথম সেরা চারে খেলার সুযোগ পেয়েছে। আর তা ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় সদ্য সমাপ্ত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির এবারের অষ্টম আসরে। চলতি বছরে মাশরাফি-সাকিব -মুশফিক-রিয়াদরা শুধু চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির স্বপ্নের সেমিফাইনালে খেলেছে তা নয়। শ্রীলঙ্কার মাটিতে হেরাথ-থারাঙ্গাদের হারিয়ে নিজেদের শততম টেস্টেও ঐতিহাসিক সাফল্য পেয়েছে টাইগাররা। তাই এবারের ঈদ বাংলাদেশ জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের জন্য এসব কারণে একটু অন্যরকমই।

  কিন্তু সেই অন্যরকমে আরেকটু বাড়তি মাত্রা পেয়েছে ঈদের আগে-পরে ব্যস্ততা না থাকায়। এবার সব ক্রিকেটাররা পরিবারকে যতটা সময় দিতে পারছেন, সচারচর অন্যান্য বছর ক্রিকেটীয় ব্যস্ততা থাকার জন্য ততটা পারেন না।

মাশরাফি, তামিমদের এবারের ঈদ শুরু হয়ে গেছে ইংল্যান্ড থেকে দেশে ফেরার পর থেকেই। আগামী মাস দেড়েক বাংলাদেশের কোন সিরিজ না থাকায় চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি শেষেই ঈদের ছুটির আমেজেই রয়েছেন ক্রিকেটাররা। ঈদের পরও প্রায় দুই সপ্তাহ তারা পরিবারের সঙ্গে থাকতে পারবেন।
বেশিরভাগ ক্রিকেটাররা বাংলাদেশে ঈদ করলেও এবার দু’একজন দেশের বাইরে সপরিবারে ঈদ করছেন।
জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের মধ্যে তামিম ইকবাল এখন সপরিবারে আছেন সিঙ্গাপুরে। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির পর দেশে ফেরেননি টেস্ট দলের অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। বগুড়ার এ সন্তান ইউরোপ ভ্রমণে রয়েছেন। লন্ডন থেকে ফ্রান্সের আইফেল টাওয়ার দেখতে গিয়েছেন তিনি। পরে স্পেনের বার্সেলোনায় ন্যু ক্যাম্পে যান। গত শনিবার মুশফিক ছিলেন ইতালির ভেনিসে। ফেসবুকে পোস্ট করেছেন সেইসব ভ্রমণের ছবি।

মাশরাফি বরাবরই ঈদ উদযাপন করেন গ্রামের বাড়ি নড়াইলে। এবারও তেমনটাই হচ্ছে। রোববারই পরিবারকে সঙ্গী করে গ্রামের মানুষের সঙ্গে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করতে নড়াইল যাচ্ছেন বাংলাদেশ ওয়ানডে দলের অধিনায়ক। যেখানে নড়াইলবাসী সবসময় অপেক্ষায় থাকে তাদের ‘প্রিয় কৌশিক’কে পাওয়ার আশায়।

সাকিব আল হাসানও আছেন দেশে। রমজানে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে গত সপ্তাহে খুলনায় ইফতার করেছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। গ্রামের বাড়ি মাগুরায় ঈদ করার কথা রয়েছে সাকিবের।

ইংল্যান্ড থেকে দেশে ফিরেই মোস্তাফিজুর রহমান ও মেহেদী হাসান মিরাজ ছুটে গেছেন নিজ গ্রামের বাড়িতে। ঈদটা সেখানেই কাটাবেন এ দুই তরুণ ক্রিকেটার। ইদানিং মোস্তাফিজ সাতক্ষীরার তেঁতুলিয়া গ্রামে না গেলে তো ওখানকার ঈদই জমে না।

মাহমুদউল্লাহ রিয়াদও কিছুদিন ইংল্যান্ডে কাটিয়ে দেশে ফিরেছেন। ঈদ কাটাতে গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহে যাওয়ার কথা রয়েছে তারও। একই জেলার ক্রিকেটার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত ঢাকায় ফিরেই বাড়ি গিয়েছেন। তার ঈদও পরিবারের সঙ্গেই কাটবে।

গতি তারকা তাসকিন আহমেদ ঢাকার লালমাটিয়ার নিজ বাড়িতে বাবা-মা, বোন আর বন্ধুদের নিয়ে ঈদ উদযাপন করবেন তিনি।

চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে দেশে ফিরে ছুরির নিচে যেতে হয়েছে রুবেল হোসেনকে। অদ্ভুত এক ইনজুরির কারণে অস্ত্রোপচার করাতে হয়েছে এ পেসারকে। তবে ঈদটা প্রতিবারের মতো এবারও বাগেরহাটেই কাটাবেন তিনি।
রাজশাহীর দুই ক্রিকেটার সাব্বির রহমান ও সানজামুল ইসলাম ইংল্যান্ড থেকে ফিরে কয়েকদিন ঢাকায় ছিলেন। তারপর চলে গেছেন রাজশাহীতে। তাদের ঈদ কাটবে প্রিয়জনের সঙ্গে।
পেসার শফিউল ইসলামও ঈদ উদযাপন করবেন বগুড়ায় নিজের বাড়িতে। নাসির হোসেন ছুটি পেয়েই উড়াল দিয়েছেন রংপুরে। তার ঈদও পরিবারের সঙ্গে কাটবে।

 

 

Check Also

সাতক্ষীরার কিংবদন্তি সৌম্যর নৈপুণ্যে বড় ব্যবধানে জিতল বাংলাদেশ:সাতক্ষীরার গর্ব

হারারেতে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছে বাংলাদেশ। উদ্বোধনী জুটিতে রেকর্ড গড়েছে। নাঈম-সৌম্যর সেই রেকর্ড জুটিতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

***২০১৩-২০২১*** © ক্রাইমবার্তা ডট কম সকল অধিকার সংরক্ষিত।