জুলাই ১৫, ২০১৭
চট্টগ্রামে ভারতীয় শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার

ক্রাইমবার্তা রিপোট:চট্টগ্রামে এক শিক্ষার্থীর রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার হয়েছে, আহত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে তার সহপাঠীকে। তারা দুইজনই ভারতীয় নাগরিক। তারা চট্টগ্রামের বেসরকারি ইউএসটিসি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী বলে পুলিশ জানিয়েছে।

নিহত আসিফ শেঠ (২৬) এবং আহত উইলসন (২৬) নগরীর আকবর শাহ থানার আব্দুল হামিদ সড়কের একটি বাসায় এক কক্ষে থাকতেন।,

শুক্রবার মধ্যরাতে দুজনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসকরা আসিফকে মৃত ঘোষণা করেন বলে মেডিকেল পুলিশ ফাঁড়ির নায়েক মোহাম্মদ হামিদ জানান।

আসিফের শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে বলে জানান তিনি।

পুলিশ জানায়, ইউএসটিসির আরেক ভারতীয় ছাত্র নিরাজ গুরু রাত সোয়া ১টার দিকে ওই দুজনকে হাসপাতালে আনেন। নিরাজ তার স্ত্রীকে নিয়ে ওই ফ্ল্যাটে আসিফ ও উইলসনের পাশের কক্ষে থাকেন।

আকবর শাহ থানার এসআই জসিমউদ্দিন জানান, ওই বাসায় যে চারজন থাকতেন তারা সবাই ভারতের মণিপুরের বাসিন্দা। তবে তারা কে কোন বিভাগের কোন বর্ষের ছাত্র তা জানা যায়নি।

নীরাজ গুরুর বরাত দিয়ে ওসি আলমগীর জানান, গতকাল রাতে ফ্ল্যাটে সবাই একসঙ্গে বসে গল্প করেন এবং মদ্যপান করেন। এরপর নীরাজ তাঁর স্ত্রীকে নিয়ে নিজের কক্ষে চলে যান। আসিফ উইসনের কক্ষে যান। রাত সাড়ে ১২টার দিকে উইসনের কক্ষ অন্ধকার দেখে নীরাজ বারবার ধাক্কা দিতে থাকেন। কিন্তু ভেতর থেকে কোনো সাড়াশব্দ পাননি। পরে বিকল্প চাবি দিয়ে দরজা খোলেন। দরজা খুলে নীরাজ দেখতে পান, বাসার ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় আছেন উইসন। আর মেঝেতে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন আসিফ শেঠ।

নীরাজের বরাত দিয়ে ওসি আলমগীর আরও জানান, নীরাজ প্রতিবেশীদের সঙ্গে নিয়ে উইসন ও আসিফকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আসিফকে মৃত ঘোষণা করেন। আসিফের শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাতের চিহ্ন ছিল।

পুলিশ নীরাজ ও তাঁর স্ত্রী জোসনাকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। পুরো বিষয়টি পুলিশ তদন্ত করে দেখছে বলে জানিয়েছে।

 

Facebook Comments
Please follow and like us:
একই রকম সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক ----- ------ মো: আবু শোয়েব এবেল ....... ...মোবাইল: ০১৭১৫-১৪৪৮৮৪ ------------------------- -

ইউনাইর্টেড প্রির্ন্টাস,হোল্ডিং নং-০, দোকান নং-০, শহীদ নাজমুল সরণী,সাতক্ষীরা অফিস যোগাযোগ ০১৭১২৩৩৩২৯৯ e-mail: crimebarta@gmail.com