জুলাই ১৬, ২০১৭
পাইকগাছায় মিথ্যা নারী নির্যাতন মামলায় পালিয়ে বেড়াচ্ছে মানবাধিকার কর্মী

ক্রাইমবার্তা রিপোট:পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ॥
বাদী ও স্বাক্ষীর সাথে আসামীর কোন চেনা-জানা না থাকলেও নারী ও শিশু নির্যাতন মামলার আসামী হয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে এক মানবাধিকার কর্মী ও আ’লীগ পরিবারের সন্তান। ঘটনাটি ঘটেছে খুলনার পাইকগাছার কাটাবুনিয়া গ্রামে।

এলাকাবাসী ও মামলা সূত্রে প্রকাশ, উপজেলার কাটাবুনিয়া গ্রামে জামশেদ গাজীর ছেলে গাউসুল গাজীর সাথে বিষ্ণুপুর গ্রামের রজব আলীর মেয়ে রিক্তা পারভীনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে বিভিন্ন কারণে পারিবারিক বিরোধ লেগে থাকায় রিক্তা পারভীন খুলনা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে মামলা করে। যা পাইকগাছা থানাকে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশ দেয়া হয়। যে মামলায় ইউনিটি ফর ইউনিভার্স হিউম্যান রাইটস ফাউন্ডেশনের গদাইপুর শাখার ভাইস চেয়ারম্যান ও মঠবাটী গ্রামের তারাই সরদারের ছেলে মোবারেক সরদারকে ২নং আসামী করা হয়। মোবারেক সরদারের বাড়ী বাদীর বাড়ী থেকে কমপক্ষে ৩০/৩৫ কিলোমিটার দূরে। এ ব্যাপারে সরেজমিনে গেলে বাদীর স্বামী গাউসুল গাজী, স্বাক্ষী মনিরুল ইসলাম ও ডাঃ রফিকুল ইসলাম বলেন, মামলার ২নং আসামী মোবারেক সরদারকে এলাকার তারা কেউ চেনে বা জানে না। বাদী রিক্তা পারভীন জানায়, এ মামলায় যে মোবারেকের নাম দেয়া হয়েছে এ মোবারেক সে মোবারেক না। মামলাটি যারা লেখালেখি করেছে তারা শত্র“তা বসতঃ এ মামলায় উল্লেখিত মোবারেকের নাম দিতে পারে। ওসি (তদন্ত) জাবীদ হাসান জানান, যেহেতু মামলাটি আদালতের। তদন্ত করে সঠিক ব্যবস্থা নেয়া হবে। মামলার আসামী মোবারেক সরদার জানায়, তার প্রতিপক্ষ এ মামলাটি দেখাশুনা করছে। ব্যবসায়িক কারণে প্রতিপক্ষরা তাকে এ মামলায় জড়িয়ে হয়রানী করছে বলে অভিযোগ করেন।

Facebook Comments
Please follow and like us:
একই রকম সংবাদ


সম্পাদক ও প্রকাশক ----- ------ মো: আবু শোয়েব এবেল ....... ...মোবাইল: ০১৭১৫-১৪৪৮৮৪ ------------------------- -

ইউনাইর্টেড প্রির্ন্টাস,হোল্ডিং নং-০, দোকান নং-০, শহীদ নাজমুল সরণী,সাতক্ষীরা অফিস যোগাযোগ ০১৭১২৩৩৩২৯৯ e-mail: crimebarta@gmail.com