অতীতে এমন আদেশ দেখিনি: জয়নুল আবেদীন

ক্রাইমবার্তা ডেস্করিপোর্ট:     ঢাকা: খালেদা জিয়ার মামলার বিষয়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি জয়নুল আবেদীন বলেছেন, এ মামলা পরিচালনায় কোনো রকম ত্রুটি হচ্ছে না। বরং অতীতে আমরা কখনো দেখি নাই, যে জামিন আবেদনের শুনানি করে আদেশ মুলতবি রাখে নথির জন্য। এটা একটা নতুন জিনিস দেখলাম।
তিনি বলেন, এ ক্ষেত্রে সরকারপক্ষ অর্থাৎ অ্যাটর্নি জেনারেল রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে আদালতে বক্তব্য রেখেছেন। তিনি আইনগত কোনো বক্তব্য দেননি। তার বক্তব্য শুনে আদালত এ রকম একটি আদেশ দিয়েছেন বলেই মনে হয়। নথি আসা পর্যন্ত জামিনের আদেশটি স্থগিত রেখেছেন। আমরা এ রকম আদেশ অতীতে কখনো দেখিনি।
‘আইনজীবীদের ভুলের কারণে খালেদা জিয়া আজ জেলে’Ñ আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের এমন মন্তব্যের বিষয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে বুধবার জয়নুল আবেদীন এসব কথা বলেন।

আইনমন্ত্রীর বক্তব্যের বিষয়ে জয়নুল আবেদীন বলেন, ‘আইনমন্ত্রীর চিন্তা করা উচিত, বোঝা উচিত, এ মামলাটিতে আমাদের যে তিনজন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী আছেন খন্দকার মাহবুব হোসেন, আবদুর রেজাক খান এবং এজে মোহাম্মদ আলী। তারা তিনজনই জ্যেষ্ঠ আইনজীবী। তাদের তিনজনকে দায়িত্ব দিয়েছি। আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে সমন্বয়ের মাধ্যমে। এখানে আমাদের মধ্যে কোনো সমন্বয়হীনতা নাই, তারা আইনগতভাবে এ মামলা মোকাবিলা করছেন।’
নিম্ন আদালতের নথি নিয়ে তিনি বলেন, ‘নথিতো ইতিমধ্যে আসা উচিত ছিল। আমরা মনে করি সরকার যদি হস্তক্ষেপ না করে, বিলম্ব না ঘটনায় তাইলে (বুধবারের) মধ্যে এ নথি এখানে এসে পৌঁছবে।’ এ সময় উপস্থিত ছিলেন সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সম্পাদক মাহবুব উদ্দিন খোকন।
এর আগে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় পাঁচ বছরের সাজাপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার করা জামিন আবেদনের ওপর শুনানি শেষ হয় গত ২৫ ফেব্র“য়ারি। ওই দিন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ মামলার নথি বিচারিক আদালত থেকে হাইকোর্টে আসার পর জামিন বিষয়ে আদেশ দেবেন বলে জানান।

Facebook Comments
Please follow and like us: