মানুষের দিন বদল শুরু হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

ক্রাইমবার্তা রিপোট: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, “২০০৯-২০১৮ সাল প্রায় ১০ বছর আওয়ামী লীগ সরকার রয়েছে। আমাদের নির্বাচনি ইশতেহার ছিল ‘দিনবদলের সনদ’। আজকে বাংলাদেশে মানুষের দিনবদল শুরু হয়েছে। আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের ফলে দেশের মানুষের জীবনে দিনবদল হয়েছে।”

সোমবার (২২ অক্টোবর) প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে বরিশাল সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ ও কাউন্সিলরদের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা দারিদ্র্য ২১ ভাগে নামিয়ে এনেছি। আগে যা ছিল ৪০ ভাগ। আজকে মানুষের মাথাপিছু আয় বেড়েছে। মানুষের আর্থসামাজিক উন্নয়ন নিশ্চিত হয়েছে। আমরা যারা রাজনীতি করি তারা শুধু নিজের ভাগ্য গড়া বা আর্থিক সচ্ছলতার জন্য নয়, দেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করাই আমাদের লক্ষ্য হওয়া উচিত।’

শপথ নিচ্ছেন বরিশালের নবনির্বাচিত মেয়র, ছবি: ফোকাস বাংলাশপথ নেওয়া জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আপনারা যারা নির্বাচিত প্রতিনিধি, জনগণের কাছে ভোট চাইতে গিয়েছিলেন। যে ভোট তারা আপনাদের দিয়েছেন, তার বিনিময়ে আপনি যতদিন থাকবেন (ক্ষমতায়) তাদের কী দিতে পারলেন সেই হিসাবটা করতে হবে। জনগণের চাওয়া বুঝতে হবে। কিসে জনগণের কল্যাণ সেটা অনুধাবন করতে হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা সরকারে আসার পর সেই চেষ্টাটাই করেছি। যার ফলে আজকে বাংলাদেশের মানুষের জীবনে ভাগ্যের পরিবর্তন হয়েছে। দিনবদলের পালা শুরু হয়েছে। আর্থসামাজিক উন্নয়ন হয়েছে।’

. বরিশাল বিভাগের উন্নয়ন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আপনাদের বরিশাল বিভাগ কতটা অবহেলিত ছিল, একবার চিন্তা করে দেখেন। প্রথমবার ক্ষমতায় এসেই সেই শিকাপুর দোয়ারিকা, গাবখানসহ বিভিন্ন ব্রিজ ও রাস্তাঘাটের উন্নয়ন করি। বরিশালের যে শস্যভাণ্ডার নাম, সেই নামটাই হারিয়ে গিয়েছিল। আমরা সেই হারানো গৌরব ফিরিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছি। বরিশাল বিভাগজুড়ে উন্নয়ন চলছে।’

মাদকের বিরুদ্ধে সরকারের জিরো টলারেন্স নীতি তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ মাদকের হাত থেকে আমাদের পুরো সমাজকে মুক্ত করতে হবে। আমরা সন্ত্রাসমুক্ত, মাদকমুক্ত দেশ গড়তে চাই। আমরা দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছি, দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে চাই।’

Facebook Comments
Please follow and like us: