শনিবার , ৪ জুলাই ২০২০

সাতক্ষীরার দেবহাটায় ৫০ হাজার টাকা মূল্যের গাছ কেটে নিয়েছে সন্ত্রাসীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক:সাতক্ষীরার দেবহাটার কুলিয়ার ৫০ হাজার টাকা মূল্যের গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে একই এলাকার সন্ত্রাসী মাসুদ আলী গংদে বিরুদ্ধে।দেবহাটা থানায় এব্যাপারে মাওলানা রওশন আলম লিখিত অভিযোগ দিয়েছে। অভিযোগে জানাযায়, গত ১৭ই সেপ্টেম্বর প্রকাশ্য দিবালোকে কুলিয়ার রশন আলমের ভোগদখলীয় ভিটা থেকে ৫০ হাজার টাকা মূল্যের কয়েকটি শিশু গাছ জোরপূর্বক কেটে নিয়েছেন কুলিয়ার পশ্চিম পাড়ার জিয়াদ আলীর পুত্র এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী মাসুদ আলী, জুলফিকার আলী ও তাদের সহযোগী এলাকার কুরবান আলীর পুত্র রাশিদুল ইমলাম মিলে গাছ কেটে ফেলে।এঘটনায় অসহায় রওশন আলম এলাকার স্থানীয় চেয়ারম্যান মেম্বরদের পরামর্শে দেবহাটা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। পুলিশ ১৮ ই সেপ্টেম্বর ঘটনাস্থলে গিয়ে কর্তনকৃত গাছ মাসুদ আলী গংদের সরাতে নিষেধ করে নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ঘটনা স্থল থেকে গাছ রাখার নির্দেষ দেয়। কিন্তু পুলিশ চলে ১৯ সেপ্টেম্বর প্রকাশ্য দিবালোকে পুলিশের নির্দেশ অমান্য করে ফ্লিম স্টাইলে মাসুদ আলী গংরা গাছগুলো গায়েব করে দেয়। স্থানীয় চৌকিদার ইব্রাহীম ও আনছার আলী, জাহিদুল জানান, রওশন আলম নিজের জায়গায় গাছ লাগিয়েছে আমরা জানি। কিন্তু মাসুদ ও জুলফিকার আলীসহ তার বাহিনী জোরপূর্বক একের পর এক গাছ কেটে নিয়ে যাচ্ছে প্রশাসনও তাদের কিছু করতে পারছে না। এব্যাপারে রওশন আলম জানান, আমি পৈত্রিক সূত্রে বন্টনকৃত জমিতে ১৫ বছর আগে শিশুগাছ লাগায়। কিন্তু গায়ের জোরে মাসুদ আলী, জুলফিকার আলীসহ তাদের বাহিনীরা গাছ গুলো কেটে নিয়েছে। আমি আইনের আশ্রয় নিলেও প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে একের পর এক আমার লাগানো গাছ কেটে নিয়ে যাচ্ছে তারা। এব্যাপারের দেবহাটা থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা এ এস আই সুজিত কুমার জানান, থানায় অভিযোগ পাওয়ার পর ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম। অভিযুক্তদের গাছগুলো সরাতে নিষেধ করলেও তারা তা মানি নাই। ওসি সাহেব ছুটি থেকে ফিরে আসার পরে আইননানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

About ক্রাইমবার্তা ডটকম

Check Also

আম্পানের ৪৪ দিনেও পানিতে তলিয়ে আশাশুনি

ক্রাইমর্বাতা রিপোট: আশাশুনি:  গত ২০ মে সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলায় আঘাত হেনেছিল ঘূর্ণিঝড় আম্পান। ওই সময় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *