নভেম্বর ১৩, ২০১৯
সাতক্ষীরা জেলার সেরা করদাতা হলেন আল ফেরদাউস আলফা’র পুত্র আশিকুর রহমান

ক্রাইমর্বাতা রিপোর্ট:  খুলনা বিভাগের ১০ জেলা ও খুলনা সিটি কর্পোরেশন নিয়ে গঠিত খুলনা কর অঞ্চলের সেরা ৭৭ জন করদাতাকে সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে। আবারও সাতক্ষীরা জেলার সেরা করদাতা হলেন করবাহাদুর পরিবারের সদস্য ২০১৫, ২০১৬ ও ২০১৭ সালের পরপর তিনবারের সেরা করদাতা ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের সদস্য মো. আল ফেরদাউস আলফা’র ছোট ছেলে মো. আশিকুর রহমান আশিক। মো. আশিকুর রহমান আশিক ২০১৮ সালেও সাতক্ষীরা জেলার সেরা করদাতার পুরস্কার পেয়েছিলেন এবং ২০১৭ সালে তার বড় ভাই মো. আজহারুল ইসলাম সেরা করদাতার পুরস্কার পেয়েছিলেন।

বুধবার (১৩ নভেম্বর) দুপুরে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের মাধ্যমে খুলনা সিটি ইন হোটেলে তাদের সম্মাননা প্রদান করা হয়। ২০১৮-১৯ করবর্ষে সর্বোচ্চ কর প্রদানকারী, সর্বোচ্চ কর প্রদানকারী তরুণ করদাতা, সর্বোচ্চ কর প্রদানকারী মহিলা করদাতা এবং দীর্ঘ সময় কর প্রদানকারী এই চার শ্রেণিতে সম্মানান প্রদান করা হয়। খুলনা কর অঞ্চলের কর কমিশনার প্রশান্ত কুমার রায়ের সভাপতিত্বে সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক বলেন, ‘দেশের উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির জন্য সময়মতো ও সঠিক নিয়মে কর প্রদানের কোন বিকল্প নেই। ১৬ কোটি মানুষের দেশে কেবল ২৫ লাখ মানুষের কর দেওয়ার বিষয়টি সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়। সময়মতো কর দিলে দেশের উন্নয়নও সঠিক সময়ে হবে। দেশের জাতীয় বাজেটের ৯০ শতাংশের যোগান দেয় দেশের মানুষ। দেশের সবাই ইতিবাচক মানসিকতা নিয়ে দেশের স্বার্থে ও আগামী প্রজন্মের কথা ভেবে কর দিলে দেশ সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে যাবে।’

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মূর্শেদী, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য (মূসক নীতি) ড. আব্দুল মান্নান শিকদার, পুলিশ কমিশনার খন্দকার লুৎফুল কবির, খুলনা কাস্টমস, এক্সসাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনার মো. মোস্তবা আলী, খুলনা কর অপীল অঞ্চলের কমিশনার মো. রফিকুল ইসলাম ও খুলনা চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি কাজি আমিনুল হক। অনুষ্ঠানে স্বাগত জানান খুলনা কর অঞ্চলের অতিরিক্ত কর কমিশনার অঞ্জন কুমার সাহা।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, ২০১৮-১৯ করবর্ষে খুলনা কর অঞ্চলে দুই হাজার চারশত কোটি টাকা রাজস্ব আদায় হয়েছে যা পূর্ববর্তী বছরের চেয়ে ৩২ শতাংশ বেশি। ২০১৯-২০ অর্থ বছরে কর আদায়ের নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা দুই হাজার আটশত ৪০ কোটি টাকার বিপরীতে প্রথম প্রান্তিকে ছয়শত ২৯ কোটি টাকা আদায় করা হয়েছে। যা প্রথম চার মাসের লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে প্রায় ১৫ শতাংশ বেশি। ২৪ হাজার নতুন করদাতা সনাক্তকরণ লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে ইতোমধ্যে ৩৪ হাজারে বেশি নতুন করদাতা টিআইএন নিবন্ধন গ্রহণ করেছেন।

এ নিয়ে খুলনা কর অঞ্চলের মোট টিআইএন ধারীর সংখ্যা দাঁড়ালো প্রায় তিন লাখ ৬৫ হাজার। অনুষ্ঠানে আরও জানানো হয়, আগামী ১৪ থেকে ২০ নভেম্বর খুলনা বিভাগীয় মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সে সাত দিনব্যাপী আয়কর মেলা অনুষ্ঠিত হবে। রিটার্ন জমা, নতুন টিআইএন গ্রহণ, ব্যাংকের বুথসহ সংশ্লিষ্ট সকল সেবা মেলার স্টলেই মিলবে। আবারও সাতক্ষীরা জেলার সেরা করদাতার পুরস্কার পাওয়ায় করবাহাদুর পরিবারের সদস্য তিনবারের সেরা করদাতা ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের সদস্য মো. আল ফেরদাউস আলফা’র ছোট ছেলে মো. আশিকুর রহমান আশিক সাতক্ষীরার বিভিন্ন সংগঠনের ফুল ও শুভেচ্ছায় সিক্ত হয়েছেন।

Facebook Comments
Please follow and like us:
একই রকম সংবাদ


www.crimebarta.com সম্পাদক ও প্রকাশক মো: আবু শোয়েব এবেল

ইউনাইর্টেড প্রির্ন্টাস,হোল্ডিং নং-০, দোকান নং-০( জাহান প্রির্ন্টস প্রেস),শহীদ নাজমুল সরণী,পাকাপুলের মোড়,সাতক্ষীরা। মোবাইল: ০১৭১৫-১৪৪৮৮৪,০১৭১২৩৩৩২৯৯ e-mail: crimebarta@gmail.com