সাতক্ষীরায় যৌতুকের দাবী হরনেট মোটরসাইকেল দিতে না পারায় স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টার অভিযোগ

ক্রাইসবার্তা রিপোটঃ    যৌতুকের দাবী হরনেট মোটরসাইকেল দিতে না পারায় স্ত্রীকে শ্বাস রোধ করে হত্যার চেষ্টার অভিযোগ করেছেন সাতক্ষীরা সদরের লাবসা ইউনিয়নের মোথরাপুর এলাকার মোঃ ইসমাইল হোসেনর মেয়ে মোছাঃ রিক্তা খাতুন (১৯)। গত ২৫.১২.১৯ তারিখ রাতে গোলাম আজম পারভেজ তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালায় এবং ২৬.১২.১৯ তারিক বৃহস্পতিবার রিক্তা তার বাবাকে জানালে আহত অবস্থায় তার বাবা তাকে উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে সকাল এগারোটায় ভর্তি করে।

রিক্তা খাতুন জানায়, এগারো মাস আগে শহরের দহাখুলা এলাকার কালামের পুত্র গোলাম আজম পারভেজের সাথে পারিবারিক ভাবে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয় মোঃ ইসমাইল হোসেনর মেয়ে মোছাঃ রিক্তা খাতুন।

বিয়ের দুই মাস পার না হতে তার স্বামী গোলাম আজম পারভেজ পেশায় একজন কোম্পানির এস আর তার বাবার কাছে হরনেট মোটরসাইকেল দাবী করে আসছে, কিন্তু তার বাবা পেশায় একজন চায়ের দোকানদার, সে কারণে তার এ যৌতুকের দাবী মেটাতে পারেনি, তার পর থেকে শুরু হয় রিক্তার উপর নির্যাতন, প্রায় চার মাস ধরে প্রতীরাতে তাকে শারীরিক ও মানসিক ভাবে নির্যাতন করে আসছে বলে জানায়, এবং প্রান নাশের হুমকি দেয়। এ ঘটনা রিক্তা তার পরিবারকে জানালে তার বাবা গত ০৫.১১.১৯ তারিখ জেলা লিগাল এইড সিনিয়র জজ সাতক্ষীরা সালমা আক্তারের কাছে অভিযোগ করেন, অভিযোগের এক পর্যায়ে গোলাম আজম পারভেজের কাছ থেকে মুচলেকা নিয়ে তার কাছে পুনরায় রিক্তা খাতুনকে তুলে দেওয়া হয়। পরে গোলাম আজম পারভেজ রিক্তাকে নিয়ে শহরের সুলতানপুর এলাকায় বাসা ভাড়া নিয়ে থাকেন এবং গত ২৫.১২.১৯ তারিখ রাতে তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালায় এবং ২৬.১২.১৯ তারিক বৃহস্পতিবার রিক্তা তার বাবাকে জানালে আহত অবস্থায় তার বাবা তাকে উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে সকাল এগারটায় ভর্তি করে।

রিক্তাখাতুনের বাবা মোঃ ইসমাইল জানান এ ঘটনায় পুনরায় জেলা লিগাল এইড সিনিয়র জজ সাতক্ষীরা সালমা আক্তারের কাছে অভিযোগ করেন। এ বিষয়ে গোলাম আজম পারভেজের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান তাদের সাংসারিক জীবনে কোন ঝামেলা নেই এবং তার বাবার কাছে যৌতুকের দাবী সে করেনি।

Check Also

অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম আইসিইউতে

ক্রাইমবার্তা রিপোট : করোনাভাইরাসে আক্রান্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে রাজধানীর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *