বাংলাদেশে নারীদের হিজাব, পুরুষের টাখনুর ওপর পোশাক পরতে জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞপ্তি

অফিস চলাকালীন মুসলিম নারীদেরকে হিজাব এবং পুরুষদেরকে টাখনুর ওপর কাপড় পরার নির্দেশ দিয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউট।

গতকাল বুধবার এক বিজ্ঞপ্তিতে ইনস্টিটিউটের পরিচালক ডা. মুহাম্মদ আব্দুর রহিম এ নির্দেশনা দেন। তবে এটা সরকারি বিধি অনুযায়ী নয় বরং অফিসের কর্মচারীদের মধ্যে ধর্মীয় অনুশাসনের চর্চা করতেই এই নির্দেশনা দেয়া হয়েছে বলে জানান তিনি

তার স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে, ‘অত্র ইন্সটিটিউটের সকল কর্মকর্তা কর্মচারিদের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, অফিস চলাকালীন সময়ে মোবাইল সাইলেন্ট/বন্ধ রাখা এবং মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের জন্য পুরুষ টাখনুর উপরে এবং মহিলা হিজাবসহ টাখনুর নিচে কাপড় পরিধান করা আবশ্যক এবং পর্দা মানিয়া চলার জন্য নির্দেশ প্রদান করা হলো।’

সরকারি চাকুরিবিধিতে এমন নির্দেশনা দেওয়ার এখতিয়ার তার রয়েছে কিনা অথবা সরকারি কোনও বিজ্ঞপ্তি দেয়া হয়েছে কিনা- এমন প্রশ্ন করলে ডা. মুহাম্মদ আব্দুর রহিম সাংবাদিকদের বলেন, ‘ধর্মীয় অনুশাসন মেনে চলার জন্য তিনি নির্দেশ দিয়েছেন। টাখনুর উপরে যদি পুরুষ কাপড় পরে তাহলে তার কোনও গুনাহ নাই, টাখনুর নিচে পরলে সে কবিরা গুনাহ করলো। একইভাবে নারীদের জন্যও সেটা প্রযোজ্য, নারীরা পর্দার ভেতরেই সুন্দর। টাখনুর নিচে কাপড় পরলে তার কবিরা গুনাহ হবে না। এই জিনিসটা আমাদের দেশে উঠে গেছে।’

প্রতিষ্ঠান পরিচালক হিসেবে এ বিজ্ঞপ্তি দিতে পারেন কিনা অথবা এটা কোনও সরকারি নির্দেশ কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমি আমার অফিসের জন্য নির্দেশ দিয়েছি। আমার অফিসে এভাবে সজ্জিত হলে আমার কাছে ভালো লাগবে।’

Check Also

২৫ পৌরসভা নির্বাচনে নৌকার টিকিট পেলেন যারা

প্রথম ধাপে আগামী ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া দেশের ২৫টি পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *