মূল্যায়নের প্রশ্নপত্র হাতে হাতে, ইউটিউবে!

নতুন শিক্ষাক্রমে ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষাণ্মাসিক সামষ্টিক মূল্যায়ন শুরু হচ্ছে বুধবার (৩ জুলাই)। এদিন সকাল ১০টা থেকে এ মূল্যায়ন কার্যক্রম শুরু হবে, বিরতিসহ চলবে পাঁচ ঘণ্টা। তবে এ মূল্যায়নের প্রশ্নপত্র আজ মঙ্গলবারই সবার হাতে হাতে, ইউটিউবেও দেখা গেছে।

বিধি অনুযায়ী পরীক্ষার তিন ঘণ্টা আগে ষাণ্মামিক মূল্যায়নের প্রশ্নপত্র ডাউনলোড করার কথা থাকলেও তা এখানে উপেক্ষিত হওয়ারই চিত্র দেখা গেছে মঙ্গলবার।

ঢাকার নামকরা কয়েকটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা জানিয়েছেন, আগামীকালের (বুধবার) পরীক্ষার প্রশ্ন আজ (মঙ্গলবার) দুপুরে অনলাইনের মাধ্যমে হাতে পেয়েছেন তারা।

মঙ্গলবার সারা দিনব্যাপী এমন ঘটনা ঘটেছে সারা দেশেই। কারণ আগামীকাল (বুধবার) ষাণ্মসিক সামষ্টিক মূল্যায়ন শুরু হবে সারা দেশের মাধ্যমিক স্কুলগুলোতে।

সূচি অনুযায়ী, প্রথম দিনে ষষ্ঠ শ্রেণিতে বাংলা, সপ্তমে ধর্ম, অষ্টমে জীবন ও জীবিকা এবং নবম শ্রেণিতে ইতিহাস ও সামাজিক বিজ্ঞান বিষয়ের মূল্যায়ন করা হবে।

এই মূল্যায়নের প্রশ্ন পাওয়ার পর সংশ্লিষ্ট শিক্ষকদের কাছে তা হস্তান্তর করা হয়। শিক্ষকরা সেই প্রশ্ন যাচাই-বাচাই করে দেছেখেন। তারপর প্রশ্নগুলো ফটোকপি করে শিক্ষার্থীদের দেয়া হবে কাল।

এদিকে অনেকে অ্যাপ থেকে প্রশ্নপত্র না নিয়ে অন্যদের কাছ থেকে পাওয়া প্রশ্নপত্র আগের দিনই প্রিন্ট করে রাখছেন বলেও সুনির্দিষ্ট তথ্য পাওয়া গেছে।

এ বিষয়ে এক পরীক্ষার্থী বলেন, ‘আমরা যা পড়েছি তা আসবে কিনা সেটা নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছি। কারণ শিক্ষকরাও আমাদের কাছে বিষয়টি ভালোভাবে উপস্থাপন করতে পারছেন না। কারণ তারাও নাকি এই পদ্ধতি সম্পর্কে বিস্তারিত তেমন জানেন না। আগামীকাল পরীক্ষায় বসলে বিষয়টি সম্পর্কে ধারণা মিলবে।

এদিকে প্রশ্নপত্র ছড়িয়ে পড়ার বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে এনসিটিবি চেয়ারম্যান অধ্যাপক মশিউজ্জামান সাংবাদিকদের বলেন, ‘এমনটা হওয়ার কথা নয়। যদিও মূল্যায়নের প্রশ্নপত্র প্রচলিত নিয়মের পরীক্ষার প্রশ্নের মতো নয়। কেউ হাতে পেলেই সে উত্তর করতে পারবেন এমন না। এক্ষেত্রে শিক্ষার্থীকে দক্ষতা অর্জন করতেই হবে। তারপরও এটা ছড়িয়ে পড়লে আমরা খোঁজ নিয়ে ব্যবস্থা নেবো।’

Please follow and like us:

Check Also

ঢাবি ছাত্রীদের পেটাচ্ছেন কুয়াকাটার ছাত্রলীগকর্মী!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর গতকাল হামলা চালায় ছাত্রলীগ। এর মধ্যে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

***২০১৩-২০২৩*** © ক্রাইমবার্তা ডট কম সকল অধিকার সংরক্ষিত।