নভেম্বর ৭, ২০১৯
শ্যামনগরে পরস্ত্রী’কে কুপ্রস্তাব দিয়ে গণধোলাইয়ের শিকার যুবক
ক্রাইমর্বাতা রিপোর্ট: দুই সন্তানের জননী অন্যের স্ত্রীকে অনৈতিক সম্পর্কের প্রস্তাব দিয়ে গণধোলাইয়ের শিকার হয়েছেন মারুফ হোসেন মিলন নামের এক যুবক। সে শ্যামনগর উপজেলার গোপালপুর গ্রামের আবু বক্কার ও দেলোয়ারা বেগম দম্পতির ছেলে।আলোচিত ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার রাত সাড়ে সাতটার দিকে শ্যামনগর উপজেলা সদর থেকে ১০ কি. মি. দুরবর্তী আটুলিয়া গ্রামে। মারুফ হোসেন মিলন ইতোপুর্বে একাধিক এনজিও’র সাথে কাজ করেছেন এবং বর্তমানে স্টুডেন্ট সলিডারিটি টিম ও ইয়ুথ গ্রুপ নামীয় প্রতিষ্ঠানের সাথে কাজ করেন। মারুফ হোসেনের মা দেলোয়ারা বেগম উপজেলার সদর ইউনিয়নের সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডের সদস্য।

প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় একাধিক সূত্র জানিয়েছে পূর্ব পরিচয়ের সূত্র ধরে মারুফ হোসেন মিলন বুধবার সন্ধ্যার পর আটুলিয়া গ্রামের একটি বাড়িতে যায়। এসময় গৃহকর্তা শ্যামনগর সদরের এফএম মার্কেটস্থ তার প্রযুক্তি কম্পিউটার নামীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অবস্থান করছিলেন।

গৃহকর্তা বাড়িতে না থাকার সুযোগে মারুফ হোসেন ওই ব্যবসায়ীর স্ত্রীকে আপত্তিজনক সম্পর্কে জড়ানোর প্রস্তাব দেন। এসময় দুই সন্তানের জননী ওই নারী মারুফ মিলনের প্রস্তাব প্রত্যাখান করায় মিলন জোরাজুরি শুরু করলে তিনি কৌশলে ঘরের বাইরে এসে দরজা আটকে দিয়ে মোবাইলে স্বামীকে বিষয়টি জানায়। এসময় গৃহবধুর ডাক চিৎকারে স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে মিলনকে গৃহবধুর শোবার ঘরের খাটের নিচ থেকে টেনে বের করে গণধোলাই দেয়।

প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয়রা আরও জানিয়েছে গৃহবধুর স্বামী দ্রুত বাড়িতে ফিরে লম্পট মিলনকে পুলিশে দেয়ার চেষ্টা করলেও মিলনের ফোন পেয়ে দ্রুত শ্যামনগর থেকে তার কয়েকজন শুভাকাক্সক্ষী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ওই গৃহকর্তাকে শেষ বারের মতো মাফ করে দেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে সবার সামনে জুতাপেটা করে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে নিয়ে যায়।

ঘটনার শিকার পরিবারের সদস্যসহ অন্যরা জানিয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পরিচয়ের পর দীর্ঘদিনের চেষ্টায়  মারুফ হোসেন মিলন সম্প্রতি ওই নারীর সাথে বন্ধুত্বের সম্পর্ক গড়ে তোলেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে স্থানীয়দের পাশাপাশি কয়েকজন জানিয়েছে এর আগেও মরুফ হোসেন মিলন একই বাড়িতে যেয়ে ওই নারীর সাথে অবৈধ মেলামেশার সময় হাতে নাতে আটক হয়। এসময় গণধোলাইয়ের শিকার হয়ে তার হাতের একটি আঙুল ক্ষতিগ্রস্ত হয়। নাম প্রকাশ করতে আপত্তি জানানো এসব প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মিলনের এমন আরও অনৈতিক কমকান্ডের কারণে সম্প্রতি পরিবারের পক্ষ থেকে ধুমধাম করে পাশর্^বর্তী উপজেলার মৌতলা গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত পরিবারের সুন্দরী মেয়ের সাথে তার বিয়ে দেয়া হয়।

এদিকে ওই গৃহবধুর স্বামী জানায় শ্যামনগর থেকে কিছু ‘ভদ্র’ লোক এসে পরবর্তীতে তার বাড়িতে প্রবেশের চেষ্টা করলে ‘জবাই’ করে দেওয়ার আশ^াস দিয়ে মিলনকে নিয়ে রাত ৯টার দিকে শ্যামনগরে চলে যায়।

প্রতিক্রিয়া জানতে মারুফ হোসেনের মিলনের ফোনে যোগাযোগ করা হলেও তিনি বার বার ‘ওয়েটিং’ থাকার পরও ফোন রিসিভ করেনি, আবার ওয়েটিং না থাকার সময়ে চেষ্টা করা হলে তিনি কল বিচ্ছিন্ন করে দেন।

উল্লেখ্য মারুফ হোসেন মিলন সম্প্রতি বান্ধবীর সাথে অনৈতিক সম্পর্কে জড়ানোর অভিযোগ তুলে অপর এক ব্যক্তির থেকে আর্থিক সুবিধা নেয়ার চেষ্টা করেও সমালোচিত হয়েছিলেন।

 



Facebook Comments
Please follow and like us:
একই রকম সংবাদ


www.crimebarta.com সম্পাদক ও প্রকাশক মো: আবু শোয়েব এবেল

ইউনাইর্টেড প্রির্ন্টাস,হোল্ডিং নং-০, দোকান নং-০( জাহান প্রির্ন্টস প্রেস),শহীদ নাজমুল সরণী,পাকাপুলের মোড়,সাতক্ষীরা। মোবাইল: ০১৭১৫-১৪৪৮৮৪,০১৭১২৩৩৩২৯৯ e-mail: crimebarta@gmail.com