প্রেমের অপবাদ দিয়ে নারীকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে পিটিয়ে জখম

দেবহাটা প্রতিনিধি: দেবহাটার পারুলিয়াতে প্রেমের অপবাদ দিয়ে ফারজানা আক্তার (২৭) নামের এক নারীকে বাড়ি থেকে ধরে এনে পিটিয়ে জখম করেছে ছেলের পরিবারের লোকজন। মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে মাঝ পারুলিয়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মনির বাড়ি সংলগ্ন এলাকায় এঘটনা ঘটে। আহত ফারজানা আক্তার ওই এলাকার আরশাদ আলীর মেয়ে এবং পারুলিয়া কম্পিউটার চাইল্ড হোম এন্ড স্কুলের শিক্ষিকা। বর্তমানে তিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এঘটনায় আহত ফারজানা বাদি হয়ে দেবহাটা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।
আহতের পরিবার জানায়, দীর্ঘদিন ধরে তাদের প্রতিবেশি মতিয়ার সরদারের ছেলে রাকিবুল ইসলাম রোমানের সাথে ফারজানা আক্তারের প্রেমের সম্পর্কের মিথ্যা অপবাদ দিয়ে আসছিল ছেলেপক্ষ। এমনকি চলতি পথে দেখা হলে প্রায়ই ফারজানাকে উত্যক্তসহ খুন জখমের হুমকি দিয়ে আসছিল রাকিবুলের বাবা মতিয়ার সরদার ও দুই চাচা আতিয়ার সরদার ও জিহাদ। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে স্কুলের শিক্ষার্থীদের ক্লাস নিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন ফারজানা। পথিমধ্যে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মনির বাড়ি সংলগ্ন এলাকায় পৌঁছালে ফারজানাকে গালি দিয়ে তার গায়ের ওপর চলন্ত মোটর সাইকেল তুলে দেয়ার চেষ্টা করেন রাকিবুল ইসলাম রোমানের চাচা আতিয়ার সরদার। এসময় চলন্ত মোটর সাইকেলের সামনে থেকে লাফিয়ে রাস্তার একপাশে পড়ে প্রান বাচান ফারজানা। বাড়ি ফিরে ফারজানা আতিয়ার রহমানের বাড়ি গিয়ে তার স্ত্রীর সাথে এঘটনার প্রতিবাদ জানান। কিছুক্ষণের মধ্যে অভিযুক্ত আতিয়ার রহমান, তার স্ত্রী রোখসানা পারভীন, ভাই মতিয়ার রহমান, ভাবি শারমিন এবং চাচতো ভাই জিহাদ মিলে হামলা চালায় ফারজানার বাড়িতে। একপর্যায়ে তারা জোরপূর্বক ফারজানাকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে রাস্তার ওপর ফেলে বেধড়ক পিটিয়ে জখম এবং শ্লীলতাহানী ঘটায়। পরবর্তীতে তার চিৎকার চেচামেচিতে স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে পৌঁছে গুরুতর আহতবস্থায় ফারজানাকে উদ্ধার করে সখিপুরস্থ দেবহাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। পরে ফারজানা বাদি হয়ে দেবহাটা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এদিকে ফারজানাকে মারপিটের পর অভিযুক্তরা নিজেদের বাঁচাতে মরিয়া হয়ে উঠেছে বলেও অভিযোগ করেছেন ভিকটিমের পরিবার। তারা বলেন, একজন নারীকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে পুরুষ ও প্রতিপক্ষ নারীরা সম্মিলিতভাবে পিটিয়ে জখমের ঘটনা অত্যন্ত অমানবিক। অভিযুক্তরা এ ঘটনাটি ধামাচাঁপা দিতে এবং নিজেদের বাঁচাতে ফারজানাকে হুমকি ধামকির পাশাপাশি তাকে দুঃচরিত্রা বলেও এলাকায় অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। এমনকি অভিযুক্তরা উল্টো ফারজানার বিরুদ্ধে থানায় আরেকটি পাল্টা অভিযোগ দিয়েছে বলেও জানান ভুক্তভোগী পরিবারটি।
এব্যাপারে দেবহাটা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ ওবায়দুল্লাহ বলেন, মারপিটের ঘটনায় আহত ফারজানা এবং তার প্রতিপক্ষরা পাল্টাপাল্টি দুটি অভিযোগ করেছেন। অভিযোগ দুটি তদন্ত করছে পুলিশ। তদন্ত পরবর্তী অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান ওসি।

Check Also

দেবহাটার শশাডাঙ্গা দাখিল মাদ্রাসায় ম্যানেজিং কমিটি গঠন

এ বি সিদ্দিক দেবহাটা (সাতক্ষীরা):-অনলাইন নিউজ পোর্টাল প্রিয় সাতক্ষীরা এর সংবাদকর্মী শহিদুল ইসলাম  দেবহাটা উপজেলার কুলিয়া …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

***২০১৩-২০২১*** © ক্রাইমবার্তা ডট কম সকল অধিকার সংরক্ষিত।