ফুটবলার সাবিনার এখন অন্য পরিচয়ও আছে

ক্রীড়া প্রতিবেদক ঢাকা: দেশের নারী ফুটবলের সবচেয়ে বড় তারকা তিনি। তবে সাবিনা খাতুনের পরিচয় এখন আর শুধু ফুটবলারেই সীমাবদ্ধ নেই, সংগঠকের পরিচয়টাও জুড়ে গেছে তাঁর নামের সঙ্গে। নিজ জেলা সাতক্ষীরায় সাবিনার আয়োজনে সম্প্রতি হয়ে গেছে ফ্র্যাঞ্চাইজি ফুটবলের আদলে একটা টুর্নামেন্ট। সফল এই আয়োজন বেশ সাড়া ফেলেছে সাতক্ষীরায়।

গত ২৮ থেকে ৩০ জুলাই অনুষ্ঠিত এই টুর্নামেন্টের জন্যই মঙ্গলবার থেকে শুরু হওয়া এশিয়ান গেমসের জন্য নারী ফুটবল দলের অনুশীলনে যোগ দিতে পারেননি সাবিনা। বাফুফেকে বলেই তিনি নিজের ছুটি বাড়িয়েছিলেন।

ওয়ারিয়র স্পোর্টস একাডেমি নামের একটি ফুটবল একাডেমি আগেই প্রতিষ্ঠা করেছেন জাতীয় নারী ফুটবল দলের অধিনায়ক সাবিনা। সেই একাডেমিই সাতক্ষীরায় টুর্নামেন্টের আয়োজন করে। তিন দিনব্যাপী এই ফুটবল টুর্নামেন্টে ছেলে ও মেয়েদের বিভাগে চারটি করে দল অংশ নিয়েছে। টুর্নামেন্ট আয়োজনে সাবিনা স্থানীয় প্রশাসনেরও সহযোগিতা পেয়েছেন।

সাবিনা বললেন, ‘সাতক্ষীরার ছেলেমেয়েদের উদ্বুদ্ধ করার জন্যই এই আয়োজন। প্রথমবারের মতো এই আয়োজনে সবার সহযোগিতা পেয়েছি। স্থানীয় সংদস সদস্য মীর মোশতাক আহমেদ রবি, সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক হুমায়ূন কবীর স্যার, স্থানীয় পুলিশ সুপার মহোদয়, সবাই উৎসাহ দিয়েছেন, অনুপ্রাণিত করেছেন। আমি চেয়েছি সাতক্ষীরার তৃণমূল পর্যায়ের ফুটবলারদের খেলার মধ্যে রাখতে। এই টুর্নামেন্ট নারী ফুটবলের জন্য নতুন খেলোয়াড় তুলে নিয়ে আনতেও কাজে লাগবে।’

সাবিনার টুর্নামেন্টে জাতীয় নারী দলের কয়েকজন ফুটবলারও খেলেছেন। এ নিয়ে কিছু নেতিবাচক আলোচনাও হয়েছে। যদিও সাবিনা জানিয়েছেন, এতে বাফুফের দিক দিয়ে কোনো সমস্যা থাকার কথা নয়, ‘এই টুর্নামেন্ট বরং তাদের কাজ সহজ করবে। বাফুফে চায় নতুন খেলোয়াড় উঠে আসুক। নারী ফুটবল নিয়ে তারা অনেক কাজ করছে। আমি শুধু টুর্নামেন্টটা আয়োজন করে তাদের একটু সহযোগিতা করতে চেয়েছি। তাই এতে তাদের কোনো আপত্তি নেই বলেই আমি মনে করি।’

নিজের টুর্নামেন্ট শেষ করে সাবিনার চোখ এখন এশিয়ান গেমস ফুটবলে। ‘আমাদের জন্য সামনে কঠিন চ্যালেঞ্জ। আমি শিগগিরই ফিরে জাতীয় দলের ক্যাম্পে যোগ দেব। এ নিয়ে কোনো বিভ্রান্তির অবকাশ নেই’, বলেছেন বাংলাদেশ নারী দলের অধিনায়ক।
গতকাল সাইফুল বারী টিটুর অধীনে শুরু হওয়া এশিয়ান গেমসের ক্যাম্পের প্রথম দিনে জাতীয় দলের ১৮ ফুটবলার যোগ দেন। সাবিনা ছাড়াও অনুপস্থিত ছিলেন জ্বরে আক্রান্ত সানজিদা। চোটের কারণে অনুশীলন করতে পারেননি তহুরা ও কৃষ্ণা।

Please follow and like us:

Check Also

সাতক্ষীরায় জীববৈচিত্র্য রক্ষায় মানব বন্ধন : হুমকির মধ্যে পড়েছে সুন্দরবনের জীববৈচিত্র্য

আবু সাইদ বিশ্বাস, সাতক্ষীরাঃ দেশের সর্ব দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের অববাহিকায় গড়ে উঠা প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভুমি বিশ্ব …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

***২০১৩-২০২৩*** © ক্রাইমবার্তা ডট কম সকল অধিকার সংরক্ষিত।