বাগআঁচড়া ও উলাশী ইউনিয়নের উদ্যোগে বিক্ষোভ-মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আব্দুল্লাহ,শার্শা প্রতিনিধি :ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপি মুখপাত্র নুপুর শর্মা দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীনকুমার জিন্দাল কর্তৃক মুসলিম উম্মার প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) ও উম্মুল মুমিনীন হযরত আয়েশা (রাঃ) এর প্রতি অবমাননাকর ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করায় আজ সোমবার বিকাল ৫টায় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে বাগআচড়া ও উলাশী ইউনিয়নে তৌহিদী জনতা। বিক্ষোভ মিছিলটি কন‍্যাদহ দাখিল মাদ্রাসার প্রধান ফটক থেকে শুরু করে রামপুর বাজার হয়ে আবার কন‍্যাদহ বাজারে সমাপ্তি ঘোষণা করেন। সম্প্রতি মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে ভারতীয় একটি গণমাধ্যমের বিতর্ক অনুষ্ঠানে আপত্তিকর মন্তব্য করেন বিজেপির মুখপাত্র নুপুর শর্মা। তার বক্তব্যে সহমত জানিয়ে দলটির দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীনকুমার জিন্দাল তার ভেরিফাইড আইডিতে একটি বার্তা টুইট করেন। এর পরই বিষয়টি নজরে আসে বিশ্বের মুসলমানদের। কর্মসূচিতে অংশগ্রহনকারী প্রধান অতিথি আলহাজ আয়নাল হক ৯নং উলাশী সাবেক চেয়ারম্যান ও শার্শা উপজেলা কৃষকলীগ সভাপতি।তিনি বলেন ভারতের এই বিজেপি হিন্দুত্ববাদী ফ্যাসিবাদী সরকার এবং তাদের নেতৃবৃন্দ প্রায়ই ইসলাম এবং হযরত মুহাম্মদ (সা.) সহ ইসলামের অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে নানা রকম উস্কানি ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে থাকে। যা মুসলিম উম্মাহ হিসেবে আমাদের পক্ষে মেনে নেয়া সম্ভব নয়। তিনি আরও বলেন, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) ও তার সহধর্মিণী উম্মুল মুমিনীন আয়েশা (রাঃ) কে নিয়ে ভারতের নূপুর শর্মা যে মন্তব্য করেছেন তা অবশ্যই মুসলমানদের জন্য কার জনক ঘটনা। শতকরা ৯২% মুসলিম দেশ হিসেবে বাংলাদেশ সরকারের ভারতের এ কর্মকাণ্ডের জন্য রাষ্ট্রীয়ভাবে তীব্র প্রতিবাদ এবং অন্যান্য মুসলিম দেশের ন্যায় ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে প্রতিবাদ জানাতে হবে। এবং বাংলাদেশের মুসলিমদের উচিত ভারতীয় সকল প্রকার পণ্য বয়কট করতে হবে। ভারতের হিন্দুত্ববাদী সরকার ও সন্ত্রাসবাদি সংগঠন ‘ইসকন’ তাদের লক্ষ্য হাসিলের উদ্দেশ্যে ইসলাম ও মুসলমানদের অবমাননা করছে। এবং বিশ্ব মানবতার মুক্তির দূত হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) এই নামে কটাক্ষ করছে। ভারতসহ পৃথিবীর অনেকগুলো রাষ্ট্র এরকম নেক্কারজনক কর্মকাণ্ডে পা বাড়াচ্ছে। এ সকল ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাতে আজ আমরা এখানে সমবেত হয়েছি। সাম্প্রতিক এ ন্যক্কারজনক ঘটনায় গোটা বিশ্বে অস্থিতি পরিবেশ সৃষ্টি হলেও ভারত সরকার এ ব্যাপারে দর্শকের ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে।‍্যাদহ দাখিল মাদ্রাসার প্রধান ফটক থেকে শুরু করে রামপুর বাজার হয়ে আবার কন্যাদহ বাজারে সমাপ্তি ঘোষণা করেন। সম্প্রতি মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে ভারতীয় একটি গণমাধ্যমের বিতর্ক অনুষ্ঠানে আপত্তিকর মন্তব্য করেন বিজেপির মুখপাত্র নুপুর শর্মা। তার বক্তব্যে সহমত জানিয়ে দলটির দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীনকুমার জিন্দাল তার ভেরিফাইড আইডিতে একটি বার্তা টুইট করেন। এর পরই বিষয়টি নজরে আসে বিশ্বের মুসলমানদের। কর্মসূচিতে অংশগ্রহনকারী প্রধান অতিথি আলহাজ আয়নাল হক ৯নং উলাশী সাবেক চেয়ারম্যান ও শার্শা উপজেলা কৃষকলীগ সভাপতি।তিনি বলেন ভারতের এই বিজেপি হিন্দুত্ববাদী ফ্যাসিবাদী সরকার এবং তাদের নেতৃবৃন্দ প্রায়ই ইসলাম এবং হযরত মুহাম্মদ (সা.) সহ ইসলামের অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে নানা রকম উস্কানি ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে থাকে। যা মুসলিম উম্মাহ হিসেবে আমাদের পক্ষে মেনে নেয়া সম্ভব নয়। তিনি আরও বলেন, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) ও তার সহধর্মিণী উম্মুল মুমিনীন আয়েশা (রাঃ) কে নিয়ে ভারতের নূপুর শর্মা যে মন্তব্য করেছেন তা অবশ্যই মুসলমানদের জন্য কার জনক ঘটনা। শতকরা ৯২% মুসলিম দেশ হিসেবে বাংলাদেশ সরকারের ভারতের এ কর্মকাণ্ডের জন্য রাষ্ট্রীয়ভাবে তীব্র প্রতিবাদ এবং অন্যান্য মুসলিম দেশের ন্যায় ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে তলব করে প্রতিবাদ জানাতে হবে। এবং বাংলাদেশের মুসলিমদের উচিত ভারতীয় সকল প্রকার পণ্য বয়কট করতে হবে। ভারতের হিন্দুত্ববাদী সরকার ও সন্ত্রাসবাদি সংগঠন ‘ইসকন’ তাদের লক্ষ্য হাসিলের উদ্দেশ্যে ইসলাম ও মুসলমানদের অবমাননা করছে। এবং বিশ্ব মানবতার মুক্তির দূত হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) এই নামে কটাক্ষ করছে। ভারতসহ পৃথিবীর অনেকগুলো রাষ্ট্র এরকম নেক্কারজনক কর্মকাণ্ডে পা বাড়াচ্ছে। এ সকল ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাতে আজ আমরা এখানে সমবেত হয়েছি। সাম্প্রতিক এ ন্যক্কারজনক ঘটনায় গোটা বিশ্বে অস্থিতি পরিবেশ সৃষ্টি হলেও ভারত সরকার এ ব্যাপারে দর্শকের ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে।

Check Also

কৃষকদের মাঝে বীজ ও সার বিতরণ

জননেত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশ এক ইঞ্চি জমিও যেন অনাবাদী না থাকে- কৃষকদের মাঝে বীজ ও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

***২০১৩-২০২১*** © ক্রাইমবার্তা ডট কম সকল অধিকার সংরক্ষিত।